ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের আমীর মুফতি সৈয়দ মো. ফয়জুল করীম বলেছেন, ভাস্কর্যের বি’ষয়ে ইসলামের দৃষ্টিতে মতামত ও দাবি তুলে ধরার মৌলিক ও মা’নবাধিকার থেকে দেয়া বক্তব্যকে কেন্দ্র করে যেভাবে একের পর এক মা’মলা দা’য়ের করা হচ্ছে, তা ইসলাম,

দেশ ও স্বাধীনতা স্বার্বভৌমত্ববি’রোধী বহুমূখী চ’ক্রান্তের অংশ। বুধবার (৯ ডিসেম্বর) বিকেলে রাজধানীর পুরানা পল্টনস্থ ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ এর কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে মুক্তিযোদ্ধা প্রজ’ন্ম পরিষদের সভাপতি শহিদুল ইসলাম কবির এর নেতৃত্বে সাক্ষাৎ করা প্রতিনিধিদের স’ঙ্গে মতবিনিময়কালে তিনি এ কথা বলেন।

ফয়জুল করীম আরও বলেন, সাম্য, মানবিক মর্যাদা ও সামাজিক ন্যায়বিচার প্রতিষ্ঠার শ্লোগানকে সামনে নিয়ে স্বাধীনতার স্থপতি বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের চিন্তা-চেতনা অনুযায়ী জাতিকে ঐক্যবদ্ধ করার মহান লক্ষ্যকে নস্যাৎ করে ভিনদেশি দালালরা অনৈক্য সৃষ্টি করতে বিভিন্নভাবে ষ’ড়যন্ত্রে লি’প্ত হয়েছে।

ইসলাম ও দেশবি’রোধী অনৈক্য সৃষ্টিকারী সকল ষ’ড়যন্ত্র ও চ’ক্রান্তের বি’রুদ্ধে মুক্তিযোদ্ধা, মুক্তিযোদ্ধার স’ন্তানসহ দেশপ্রে’মিক ঈমানদারদেরকে সজাগ থেকে সাহসিকতার স’ঙ্গে পরিস্থিতি মো’কাবিলা করতেও আহ্বান জানান তিনি।

মুফতী সৈয়দ মুহাম্ম’দ ফয়জুল করীম আরো জানান, আমার বাবা ও দাদা এদেশের স্বাধীনতা স্বার্বভৌমত্ব রক্ষায় অ’পরাধমুক্ত বাংলাদেশ গড়তে দেশব্যাপী মাহফিলের মাধ্যমে লাখো অ’পরাধীকে সোনার মানুষে পরিণত করেছেন।

এজন্য চ’রমোনাই পীর সাহেব রহঃ দেরকে রাষ্ট্রীয় স্বীকৃতি না দিয়ে স্বাধীনতা বি’রোধী আখ্যা দিয়ে ভুঁইফোরদের অভিযোগ দুঃখজনক।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here