যুক্তরাষ্ট্রে প্রে’সিডেন্ট নির্বাচন নির্ধারণ করা হয়েছে আগামী নভেম্বরে। তবে এবারও কি ট্রা’ম্প থাকবে নাকি তার স্থানে অন্য কেউ আসবে এই নিয়ে এখন চলছে জল্পনা-কল্পনা।

এরইমধ্যে যুক্তরাষ্ট্রকে খোঁচা মারলেন ইরানের প্রে’সিডেন্ট হাসান রুহানি। তিনি বলেছেন, যুক্তরাষ্ট্রের পরবর্তী প্রে’সিডেন্ট ইরানের দাবির কাছে নতিস্বীকার করতে বা’ধ্য হবে। মঙ্গলবার (২২ সেপ্টেম্বর) রাতে জাতিসংঘ সাধারণ পরিষদের বার্ষিক অধিবেশনে এক ভিডিও ভাষণে এমন মন্তব্য করেন ইরানের প্রে’সিডেন্ট।

হাসান রুহানি বলেন, মা’র্কিন নির্বাচন ও অভ্যন্তরীণ রাজনীতিতে ব্যবহার করার মতো কোনো বি’ষয় আমরা নই। দেশটির নির্বাচনের মাধ্যমে যে স’রকারই ক্ষ’মতায় আসুক তারা ইরানি জনগণের দাবির সামনে আত্মসমর্পণ করতে বা’ধ্য হবে।

বর্তমান মা’র্কিন প্রে’সিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রা’ম্প ২০১৮ সালের মে মাসে ইরানের পরমাণু সমঝোতা থেকে যুক্তরাষ্ট্রকে একতরফাভাবে বের করে নেন। তিনি তার ভাষায় নতুন একটি চুক্তি করার জন্য ইরানের প্রতি আহ্বান জানালেও তেহরান তা প্রত্যাখ্যান করেছে।

অন্যদিকে আগামী ৩ নভেম্বরের মা’র্কিন প্রে’সিডেন্ট নির্বাচনে ট্রা’ম্পের প্রধান প্রতিদ্ব’ন্দ্বী জো বাইডেন নির্বাচিত হলে ইরানের পরমাণু সমঝোতায় ফিরে আসার প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন। ২০১৫ সালে যখন তৎকালীন মা’র্কিন প্রে’সিডেন্ট বারাক ওবামার শাসনামলে এই সমঝোতা স্বাক্ষরিত হয় তখন জো বাইডেন ছিলেন যুক্তরাষ্ট্রের ভাইস প্রে’সিডেন্ট।

৪ অক্টোবর থেকে পবিত্র ওমরাহ শুরু

আগামী ৪ অক্টোবর থেকে পবিত্র ওমরাহ হজ পালনের জন্য মক্কার বায়তুল্লাহ খুলে দেয়ার সি’দ্ধান্ত নিয়েছে সৌদি স’রকার। সৌদি কর্তৃপক্ষ এক ঘোষণায় জানিয়েছে, স্বা’স্থ্যবিধি মেনে পবিত্র ওমরাহ পালনের জন্য মসজিদুল হারাম এবং হযরত মুহাম্ম’দ (সা.)-এর রওজা মোবারক জিয়ারতের জন্য মসজিদে নববী চার ধাপে খুলে দেয়া হবে।

প্রথম ধাপে, চার অক্টোবর থেকে শুধু সৌদির অভ্যন্তরে বসবাসরত দেশটির নাগরিক এবং বিদেশিরা স্বা’স্থ্য সতর্কতা ব্যবস্থাকালীন মোট ধারণক্ষ’মতার ৩০ শতাংশ হারে দৈনিক প্রায় ছয় হাজার মানুষ ওমরাহ পালন করতে পারবেন।

দ্বিতীয় ধাপে, ১৮ অক্টোবর থেকে স্বা’স্থ্য সতর্কতা অবলম্বনে দৈনিক প্রায় পনের হাজার ওমরাহ পালনকারী এবং ৪০ হাজার মুসল্লি মসজিদুল হারামে ওমরাহ, নামাজ আদায় এবং মসজিদে নববীতে জিয়ারত করতে পারবেন।

তৃতীয় ধাপে, ১ নভেম্বর থেকে ক’রোনার বি’পদ শেষ হয়েছে এই মর্মে ঘোষণা না দেয়া পর্যন্ত সৌদি নাগরিক ও বিদেশিরা স্বা’স্থ্য সতর্কতা মেনে মসজিদুল হারামে ওমরা ও নামাজ আদায় এবং মসজিদে নববীতে জিয়ারাহ করতে পারবে।

চতুর্থ ধাপে, ক’রোনার বি’পদ শেষ হয়েছে মর্মে ঘোষণা দেয়ার পর সৌদির অভ্যন্তরের এবং বাইরের সৌদি নাগরিক ও বিদেশীরা সকলেই পূর্বের ন্যায় মসজিদুল হারামে ওমরা, নামাজ আদায় এবং মসজিদে নববীতে জিয়ারাহ করতে পারবেন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here